Connect with us

সৃজন মিউজিক

কবিগুরুর ১৫৬তম জন্মবার্ষিকী আজ

Published

on

বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • শান্তা মারিয়া

আজ পঁচিশে বৈশাখ। কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ১৫৬তম জন্মবার্ষিকী। ১২৬৮ বঙ্গাব্দে (১৮৬১ খ্রিস্টাব্দ) আজকের দিনে তিনি জন্মগ্রহণ করেন। কলকাতার জোড়াসাঁকোর বিখ্যাত ঠাকুর পরিবারে দেবেন্দ্রনাথ ঠাকুর ও সারদাসুন্দরী দেবীর চতুর্দশ সন্তান বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ। বাংলাদেশ ও ভারতের জাতীয় সংগীতের রচয়িতা রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর বাংলা সাহিত্যের প্রাণপুরুষ। কবিতা, গল্প, উপন্যাস, নাটক, প্রবন্ধসহ সাহিত্যের প্রতিটি শাখায় অসামান্য অবদান রেখে তিনি বাংলা সাহিত্যকে সমৃদ্ধ করেছেন। তার লেখা ও সুর করা আড়াই হাজারের বেশি গান বাংলা সাহিত্যের অতুলনীয় সম্পদ। চিত্রশিল্পেও তার অবদান অসামান্য। তার আঁকা প্রায় দুই হাজার ছবি দেশে-বিদেশে ব্যাপক সমাদর লাভ করে।

তিনি পশ্চিমবঙ্গের বোলপুরের শান্তিনিকেতনে বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে শিক্ষাব্যবস্থায় নতুন ধারা প্রবর্তন করেন। কৃষির উন্নতির জন্য তার প্রতিষ্ঠিত শ্রীনিকেতনও এক যুগান্তকারী প্রতিষ্ঠান।

অবিভক্ত ভারতের কুষ্টিয়া ও শাহজাদপুরে ছিল ঠাকুর পরিবারের বিশাল জমিদারি। তিনি জমিদারি পরিদর্শনের কাজে পূর্ববঙ্গের শাহজাদপুর ও শিলাইদহে দীর্ঘদিন বাস করেন। শিলাইদহের কুঠিবাড়িতে রবীন্দ্রনাথ সপরিবারে বাস করতেন। পদ্মাবক্ষে নৌকায় (বোট হাউসে) অনেক দিন বসবাস করেছেন রবীন্দ্রনাথ। তার অনেক সৃষ্টিকর্মই এই পূর্ববাংলায় রচিত। তিনি পূর্ববাংলার কৃষক সমাজের উন্নতির জন্য অনেক কাজ করেছিলেন এবং কৃষি ব্যাংক প্রতিষ্ঠা করেছিলেন।

আদি ব্রাহ্ম সমাজের সম্পাদক রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর সমাজসংস্কারমূলক কাজের সঙ্গেও সক্রিয়ভাবে জড়িত ছিলেন। সাহিত্যে অবদানের জন্য ১৯১৩ সালে তিনি নোবেল পুরস্কার লাভ করেন। গীতাঞ্জলি কাব্যগ্রন্থের ইংরেজি অনুবাদের জন্য এই পুরস্কার লাভ করেন তিনি। রবীন্দ্রনাথই প্রথম এশিয়াবাসী যিনি এ পুরস্কারে ভূষিত হন। নোবেল পুরস্কারের সমুদয় অর্থ তিনি বিশ্বভারতী ও শ্রীনিকেতনের উন্নয়নে ব্যয় করেন। ১৩৪৮ বঙ্গাব্দের ২২ শ্রাবণ (১৯৪১ খ্রিস্টাব্দ) রবীন্দ্রনাথ মৃত্যুবরণ করেন। বাঙালির প্রতিটি আবেগ অনুভবে জড়িয়ে আছেন রবীন্দ্রনাথ।

পাকিস্তান আমলে সরকারিভাবে রবীন্দ্রনাথকে বেতারে ও টিভিতে নিষিদ্ধ করা হলেও বাঙালির মননে ও চেতনে তিনি প্রবল প্রতাপেই রাজত্ব করেন।

বাংলাদেশের স্বাধীনতাযুদ্ধেও তার গান ও কবিতা ছিল প্রেরণাস্বরূপ। বাংলা ভাষার সর্বশ্রেষ্ঠ সাহিত্যিক রবীন্দ্রনাথের ৫২টি কাব্যগ্রন্থ, ৩৮টি নাটক, ১৩টি উপন্যাস ও ৩৬টি প্রবন্ধ এবং অন্যান্য গদ্যসংকলন তার জীবদ্দশায় বা মৃত্যুর অব্যবহিত পরে প্রকাশিত হয়। ৩২ খণ্ডে প্রকাশিত রবীন্দ্র রচনাবলিতে তার সাহিত্যকর্ম সংকলিত হয়েছে। রবীন্দ্রনাথের লেখা চিঠিসমূহ সাহিত্যমূল্যে অনবদ্য। এগুলো বাংলা পত্রসাহিত্যের সম্পদ। এগুলো আলাদাভাবে গ্রন্থভুক্ত করা হয়েছে।

তিনি নিজের লেখা অনেক নাটকে অভিনয় করেছেন। অভিনেতা হিসেবেও তিনি প্রশংসা পেয়েছেন। তিনি একজন সুগায়কও ছিলেন। ১৯১৫ সালে ব্রিটিশ সরকার তাকে নাইট উপাধিতে ভূষিত করে। কিন্তু ১৯১৯ সালে পাঞ্জাবের জালিয়ানওয়ালাবাগ হত্যাকাণ্ডের প্রতিবাদে তিনি এ উপাধি ত্যাগ করেন। ১৯০১ সালে বোলপুরের শান্তিনিকেতনে বিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা করেন। পরে ১৯২৩ সালে আনুষ্ঠানিকভাবে বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠিত হয়। তিনি শ্রীনিকেতন প্রতিষ্ঠা করেন ১৯২১ সালে। যদিও এর অনেক আগেই শিলাইদহের জমিদারিতে তিনি কৃষকের উন্নয়নের জন্য একটি প্রতিষ্ঠান স্থাপন করেছিলেন। তিনি প্রায় সারাবিশ্ব ভ্রমণ করেছেন এবং বিভিন্ন দেশে মানবতার বাণী প্রচার করেছেন। বিশ্বের বিভিন্ন ভাষায় তার রচনাবলি অনূদিত হয়েছে।

বাঙালিকে এবং বাংলা ভাষা ও সাহিত্যকে বিশ্বের দরবারে মর্যাদার আসনে প্রতিষ্ঠিত করেছেন রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর। তিনি লিখেছেন ‘পঁচিশে বৈশাখ চলেছে/জন্মদিনের ধারাকে বহন করে/মৃত্যুদিনের দিকে।/সেই চলতি আসনের উপর বসে/কোন্ কারিগর গাঁথছে/ছোটো ছোটো জন্মমৃত্যুর সীমানায়/নানা রবীন্দ্রনাথের একখানা মালা।’

রবীন্দ্রনাথের দীর্ঘ জীবনের কর্মের দিকে তাকালে দেখা যায়, তিনি যেমন সাহিত্যের প্রতিটি শাখাকে তার অতুলনীয় প্রতিভার স্পর্শে সমৃদ্ধ করেছেন, তেমনি বাঙালির সাংস্কৃতিক বিকাশেও অমূল্য অবদান রেখেছেন।

পতিসরে কেন্দ্রীয় অনুষ্ঠান, যাচ্ছেন রাষ্ট্রপতি

নওগাঁ প্রতিনিধি জানান, এ বছর রবীন্দ্রজয়ন্তীর কেন্দ্রীয় অনুষ্ঠান নওগাঁর পতিসরে অনুষ্ঠিত হচ্ছে। এ উপলক্ষে জেলা প্রশাসনের সহযোগিতায় সংস্কৃতিবিষয়ক মন্ত্রণালয় পতিসরে বিভিন্ন কর্মসূচি হাতে নিয়েছে। কবির নিজস্ব জমিদারি কালিগ্রাম পরগনার কাছারিবাড়ি আত্রাই উপজেলার পতিসরে নেওয়া হয়েছে ব্যাপক প্রস্তুতি। কবিপুত্র দেবেন্দ্রনাথের নামে নির্মিত দেবেন্দ্রমঞ্চ সজ্জিত করা হয়েছে। রবীন্দ্রজয়ন্তীর এই অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ।

নওগাঁ শহর থেকে ৩৬ কিলোমিটার দূরে আত্রাই উপজেলার নিভৃত পল্লী পতিসর। কবি প্রথম পতিসরে আসেন ১৮৯১ সালে। এর পর থেকে তিনি ১৯৩৭ সাল পর্যন্ত নিয়মিত এখানে এসেছেন। এখানে বসে রচনা করেছেন অজস্র কবিতা, গান, ছোট গল্প, নাটক ও উপন্যাস।

পতিসর রবীন্দ্র সংগ্রহশালার প্রতিষ্ঠাতা এম মতিউর রহমান মামুন, আবাদপুকুর মহাবিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ জিএম মাসুদ রানা ও স্থানীয় সাংস্কৃতিককর্মী ওহেদুল ইসলাম মিলন বলেন, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের নামে একটি কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের দাবি স্থানীয়দের। নওগাঁর পুলিশ সুপার মো. মোজাম্মেল হক জানিয়েছেন, আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির দিকে সার্বক্ষণিক নজর রাখা হচ্ছে।

জেলা প্রশাসক ড. মো. আমিনুর রহমান জানান, উৎসবে দুই হাজারেরও বেশি অতিথিকে নিমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। কবির স্মৃতিবিজড়িত বিভিন্ন ধরনের সামগ্রী দিয়ে সাজানোর চেষ্টা করা হয়েছে পতিসর কাছারিবাড়ি। বেলা দুটোয় পতিসর দেবেন্দ্রমঞ্চে প্রথমে রয়েছে আলোচনা ও স্মৃতিচারণ। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করবেন সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর। স্বাগত বক্তব্য রাখবেন সংস্কৃতিবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের ভারপ্রাপ্ত সচিব মো. ইব্রাহীম হোসেন খান। স্মারক বক্তব্য রাখবেন অধ্যাপক ড. হায়াৎ মামুদ এবং বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখবেন বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী মুহা. ইমাজউদ্দিন প্রামাণিক এবং স্থানীয় সংসদ সদস্য মো. ইসরাফিল আলম। পরে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি ঢাকা, জেলা শিল্পকলা একাডেমি নওগাঁ, উপজেলা শিল্পকলা একাডেমি আত্রাই ও রানীনগরের শিল্পীরা সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশন করবেন।

শাহজাদপুরে তিন দিনের কর্মসূচি

শাহজাদপুর থেকে আতিক সিদ্দিকী জানিয়েছেন, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে কবির স্মৃতিবিজড়িত শাহজাদপুরে সিরাজগঞ্জ জেলা প্রশাসন ৩ দিনব্যাপী অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে। প্রথম দিন আজ ২৫ বৈশাখ সকাল ১০টায় উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক উপদেষ্টা এইচটি ইমাম। সম্মানিত অতিথি থাকবেন স্থানীয় সংসদ সদস্য হাসিবুর রহমান স্বপন। বিশেষ অতিথি থাকবেন অধ্যাপক ডা. হাবিবে মিল্লাত মুন্না এমপি, গাজী ম. ম. আমজাদ হোসেন মিলন এমপি, আব্দুল মজিদ ম-ল এমপি ও সেলিনা বেগম স্বপ্না এমপি। সভাপতিত্ব করবেন সিরাজগঞ্জের জেলা প্রশাসক কামরুন নাহার সিদ্দিকা।

উদ্বোধনী সভাশেষে সিরাজগঞ্জ জাতীয় রবীন্দ্রসংগীত সম্মিলন পরিষদ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশন করবে। বিকাল সাড়ে ৪টায় আলোচনাসভায় প্রবন্ধ উপস্থাপন করবেন প্রফেসর ড. সাইফুদ্দিন চৌধুরী।

বিশ্বকবির স্মৃতিধন্য শাহজাদপুরের কাছারিবাড়ি কবির জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে মনোরম সাজে সাজানো হয়েছে। অনুষ্ঠান ঘিরে শাহজাদপুরে সাজসাজ রব পড়েছে। শাহজাদপুর হাইস্কুল মাঠে বসানো হয়েছে বৈশাখীমেলা।

Dhaka Attack Unreleased Song

Advertisement
কাজী শুভর গানে কলকাতার পল্লবী কর ও প্রেম কাজী
সৃজন মিউজিক2 years ago

কাজী শুভর গানে কলকাতার পল্লবী কর ও প্রেম কাজী (ভিডিও)

Praner Giutar
নতুন গান3 years ago

ভালোবাসা দিবসে দুই বাংলার মিশ্রণে ‘প্রাণের গীটার’

প্রাণের গীটার
নতুন গান3 years ago

মাহফুজ ইমরানের‌ এক বছরের সাধনার ফসল ‘প্রাণের গীটার’ (ভিডিও)

কণ্ঠশিল্পী শাহজাহান শুভ
সৃজন মিউজিক3 years ago

শাহজাহান শুভ’র ‘কথামালা’ গান অন্তর্জালে

ওমরসানী, শাকিব খান ও জায়েদ খান
বিনোদন3 years ago

শাকিব খানের কাছে ক্ষমা চাইলেন জায়েদ খান

নতুন গান3 years ago

রোহিঙ্গাদের নিয়ে গান গাইলো অবস্‌কিওর

সৃজন মিউজিক3 years ago

প্রকাশ হলো ‘ঢাকা অ্যাটাক’ ছবির অরিজিত সিংয়ের সেই গান

ব্যান্ড সঙ্গীত3 years ago

শাকিরার নতুন মিউজিক ভিডিও ‘পেরো ফিয়েল’

মিউজিক ভিডিও3 years ago

তানজীব সারোয়ারের নতুন গান

মিউজিক ভিডিও3 years ago

ইউটিউবে কুমার বিশ্বজিতের নতুন গান ‘জোছনার বর্ষণে’

Trending